ব্যাংকে জঙ্গি অর্থায়ন বন্ধে নজরদারি

ঢাকা, ৩০ এপ্রিল- ব্যাংকে জঙ্গি অর্থায়ন বন্ধে নজরদারি নির্দেশ দিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক। এই নির্দেশনাসহ জঙ্গি অর্থায়ন বন্ধে ত্রিমুখী উদ্যোগ নিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক। পাশাপাশি সন্দেহজনক লেনদেনের তথ্যও আদান-প্রদান হচ্ছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সঙ্গে।

নির্দেশনায় বলা হয়েছে, কোনো ব্যাংক যাতে কোনোভাবে সন্ত্রাসে অর্থায়নে ব্যবহূত হতে না পারে অথবা কোনো সন্ত্রাসী ব্যাংকের মাধ্যমে যাতে লেনদেন করতে না। আর এই বিষয়ের জন্য সর্বোচ্চ সতর্কতামূলক ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য নির্দেশনাও দেওয়া হয়েছে।

কাজী আরিফের মরদেহ দেশে আনা হবে ২ মে

ঢাকা, ৩০ এপ্রিল- নিউইয়র্কে সদ্য প্রয়াত আবৃত্তিকার ও মুক্তিযোদ্ধা কাজী আরিফের শনিবার জামাইকা মুসলিম সেন্টারে বাদ মাগরিব জানাজা অনুষ্ঠিত হয়। এ সময় বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা সংসদ যুক্তরাষ্ট্র কমান্ডের পক্ষ থেকে শিল্পীকে গার্ড অব অনার দেওয়া হয়।

এদিকে, বাংলাদেশ সরকারের পক্ষ থেকে যথাযোগ্য সম্মানপূর্বক এই বীর মুক্তিযোদ্ধা ও আবৃত্তিশিল্পীর মরদেহ রাষ্ট্রীয় ব্যবস্থাপনায় দেশে আনার সকল প্রস্তুতি নেয়া হয়েছে। নিউইয়র্কস্থ বাংলাদেশ মিশনের কনসাল জেনারেল শামীম আহসান এবং রাষ্ট্রদূত জাতিসংঘের স্থায়ী প্রতিনিধি মাসুদ বীন মোমেন এ কথা নিশ্চিত করেন।

দেহব্যবসা চালাচ্ছেন নারী সংসদ সদস্য!

নয়াদিল্লী, ৩০ এপ্রিল- খোদ জনতা ভবনে দেহব্যবসা চালাচ্ছেন বিজেপির নারী সংসদ সদস্য। নিজের ফেসবুকে এমনই বিতর্কিত একটি পোস্ট করেন অসম পুলিশের রিজার্ভ ব্যাটেলিয়নের ডিএসপি অঞ্জন বরা। পরে শনিবার সিআইডি তাকে গ্রেফতার করেছে।

২৫ এপ্রিল অঞ্জন বরা ফেসবুকে লেখেন, অসম সচিবালয় জনতা ভবনে নিজের কক্ষে নির্লজ্জ দেহব্যবসা চালাচ্ছেন বিজেপির এক বিধায়িকা। প্রতি তিন ঘণ্টার জন্য নিচ্ছেন এক লাখ টাকা। রমরমিয়ে চলছে ওই ব্যবসা। ওই বিধায়িকার পদবি কিন্তু চক্রবর্তী নয়।

হাওরবাসীর ভাগ্য নিয়ে কেউ ছিনিমিনি খেলতে পারবে না

ঢাকা, ৩০ এপ্রিল- প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, হাওরবাসীর ভাগ্য নিয়ে কেউ ছিনিমিনি খেলতে পারবে না। বাঁধ নির্মাণে গাফলতি হলে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে। সুনামগঞ্জের শাল্লায় রোববার এক সুধী সমাবেশে এ সব কথা বলেন তিনি।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, কৃষকদের সুবিধার্থে কৃষি ঋণ অর্ধেকে নামিয়ে আনা হবে। আগামী মৌসুমে হাওরাঞ্চলে প্রয়োজনীয় সার ও বীজ বিনামূ্ল্যে দেওয়া হবে। ভবিষ্যতে হাওরাঞ্চলে আবাসিক স্কুল নির্মাণ করা হবে।

সবচেয়ে বেশি সুবিধাপ্রাপ্ত ভোটার ভারতদাস

আমেদাবাদ, ৩০ এপ্রিল- গুজরাট রাজ্যের গির অরণ্যের বানেজ গ্রামে থাকেন ষাটোর্ধ্ব ভারতদাস দর্শনদাস। সেখানকার তীর্থধামের পুরোহিতের দায়িত্বভার তাঁর কাঁধে। তিনি স্থানীয় একটি শিবমন্দিরের দেখভালও করেন। তিনি ভারতের সবচেয়ে বেশি সুবিধাপ্রাপ্ত ভোটারদের একজন।

ভারতদাস গত চারটি নির্বাচনে এভাবেই ভোট দিয়েছেন। ভারতীয় নির্বাচন কমিশনের নির্দেশনা অনুযায়ী কোনো ভোটারের বাসস্থান থেকে ভোটকেন্দ্রের দূরত্ব দুই কিলোমিটারের বেশি হতে পারবে না। সে জন্য নির্বাচনী কর্মকর্তারা জুনাগড় জেলার গির অরণ্যে ৩৫ কিলোমিটার পথ পেরিয়ে বানেজ গ্রামে গিয়ে ভোটকেন্দ্র স্থাপন করেন। এ কাজে বনরক্ষীরা সাহায্য করে থাকেন।